Image

আমার দেখা মিনি কক্সবাজার।

ঢাকার নবাবগঞ্জ থেকে আসা একটি রাস্তা সোজা গিয়ে ইতি টেনেছে দোহারের মৈনট ঘাটে। এটি ঢাকা জেলার দোহার উপজেলার প্রাণকেন্দ্রে গড়ে উঠেছে।ঐতিহ্যবাহী এই স্থানটি হয়ে উঠেছে ভ্রমন প্রয়াসী মানুষের মনের খোরাক। খুব সহজেই ঢাকা থেকে কাছাকাছি মৈনট এ ঘুড়ে আসা যায়। ঘুড়ে বেড়ানোর সাথে সাথে গ্রহন করা যায় ইলিসের মজার স্বাদ। ভ্রমন প্রয়াসীদের খুদার তৃপ্তিতে মৈনট ঘাটের সাথে গড়ে উঠেছে ইলিশের বাজার। হোটেলে আছে রান্না করা শরিষা ইলিস আর বাইরে আছে মাছিয়ালদের ইলিসের দরদাম। মৈনট শুধু ইলিসেরই রাজা নয় সেতো রাজা প্রাকৃতিক অপরুপ সৌন্দর্যের ও। সকালে স্নিগ্ধ রোদে চিকিমিকি বালি, দুপুরে ভ্রমন প্রয়াসীদের মোনের আনন্দের গোসল আর সন্ধ্যায় সূর্য্যাস্ত স্হানটিকে করেছে পরিপূর্ন। শুধু এই না সাথে আছে নৌকা ভ্রমন। স্পিড বোর্ডের কলোরোলে নদী পারাপার। বর্ষার শেষে নদীর পাড়ের কোন এক শেষ প্রান্তে জেগে উঠে নরম মাটির চর। সেখানে পিকনিক, আড্ডায় মুখরিত হয় পর্যটনদের মোন। রং বেরং এর ঘুড়ি উড়ে আকাশে, ঘাটের চরে মেলে বসে মেলা, বাচ্চাদের মনের খেলনা, নগরদোলায় মুখরিত ঘাটটি আমার দেখা সর্বোচ্চ সুন্দরতম স্থান। তাই মোন চায় বলতে, চলনা যাই নদীর টানে মিনি কক্সবাজারে।

  •  মৈনট ঘাট।
  •  Bangladesh
  •  দোহার, ঢাকা
  •  Bus
  •  sufficent
  •  Hilish
  •  Rich food

0 comments

Leave a comment

Login To Comment